,



শেখ হাসিনা আর খালেদা জিয়ার পরিবারের মধ্যে পার্থক্য আকাশ পাতাল : চসিক মেয়র | Times Tribune

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি :: চট্টগ্রাম সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, বাংলাদেশকে একটি সুখী সমৃদ্ধ, দুর্নীতি ও মাদক মুক্ত রাষ্ট্রে পরিণত করতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা নিরন্তর সংগ্রাম করে যাচ্ছেন। আগামী ২০৩০ সালের মধ্যে এদেশ হবে পৃথিবীর নিষ্কলুষ একটি উন্নত আধুনিক রাষ্ট্র এটিই তার স্বপ্ন। একজন দূরদর্শী রাষ্ট্র নায়ক হিসেবে ইতোমধ্যেই তিনি পৃথিবী জুড়ে সমাদৃত হয়েছেন। দেশে সুশাসন প্রতিষ্ঠার স্বপ্ন দ্রষ্টা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি জাতিকে স্বপ্ন দেখাননি শুধু স্বপ্ন বাস্তবায়ন করছেন। এখন প্রতিটি বাঙালির চোখে মুখে স্বপ্ন বাস্তবায়নের স্বপ্ন। তিনি জাতিকে স্বপ্ন দেখতে শিখিয়েছেন। 

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরিবারের দিকে তাকিয়ে দেখুন। তার দুই সন্তান সজীব ওয়াজেদ জয় আর পুতুল নিজেদের কর্মগুনে বিশ্বে আজ নিজেদের অবস্থান অনন্য উচ্চতায় তুলে ধরেছেন। তিনি বলেছেন তার পরিবারের সদস্য শুধুমাত্র সাত জন। এর বাইরে আর কেউ তার পরিবারের সদস্য নন। দুর্নীতি, মাদক,সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে সকল সংকীর্ণতার উর্ধ্বে উঠে তিনি শুদ্ধি অভিযান চালাচ্ছেন।

মেয়র আরো বলেন, আর বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার পরিবারের দিকে তাকিয়ে দেখুন। তার দুই সন্তান তারেক রহমান আর কোকো। কোকো আজ প্রয়াত। তার বিরুদ্ধে কোন কথা বলবো না। তারেক রহমান ক্ষমতায় থাকাকালীন কি করেছেন দেশের মানুষ সবই জানেন। আইনের হাত থেকে বাঁচতে তিনি আজ দেশান্তরী। তিনি নিজে যদি দুর্নীতি মুক্ত হন তাহলে দেশে আসার জন্য তাকে অনুরোধ জানাই।

দুর্নীতির দায়ে খালেদা জিয়াও আজ কারাগারে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পরিবার আর বেগম খালেদা জিয়ার পরিবারের মধ্যে পার্থক্য আকাশ পাতাল।
আজ (২৫ অক্টোবর) দুপুরে পাথর ঘাটা বান্ডেল সেবক কলোনিতে আয়োজিত ” মাদককে না বলুন” শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন এসব কথা বলেন।

উত্তম দাশের সভাপতিত্ব ও জীবন দাশের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় আন্দরকিল্লা ওয়ার্ড কাউন্সিলর জহর লাল হাজারী, হরিজন সম্প্রদায় সর্দার মায়াদিন সর্দার, বান্ডেল সেবক কলোনি উৎসব উদযাপন পরিষদের সভাপতি রতন কুমার ভৌমিক, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সম্পাদক ইয়াসির আরাফাত, কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো মহসিন প্রমুখ বক্তব্যে রাখেন।

এতে কাউন্সিলর জহিরুল আলম জসিম, কেন্দ্রীয় ছাত্র লীগ সাবেক সহ-সম্পাদক আবদুল্লাহ আল মামুনসহ সংশ্লিষ্ট রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

TT/F

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ